[X]

2017 সালের সেরা প্রেমের কাহিনী আসা করি সবার মোন ছুঁয়ে জাবে

গল্পের নাম :.. এই জীবন শুধুই তোমার......

গল্পটা পড়ার অনুরোধ রইল সবার কাছে

ছেলে : আজ রাতে ১১.৩০ এই সময় একবার
আসতে পারবে আমি তোমার সাথে একবার দেখা করতে চাই ?
মেয়ে : কালকে আমার বিয়ে আর তুমি আজ ডাকছো
বাড়ির লোকজন জানতে পারলে
খারাপ মনে করবে ।
ছেলে : না মানে জীবনে শেষ বারের মতো
তোমাকে একবার দেখতে চাই ।
আর তো তোমাকে দেখতে পাবো না তাই একবার প্লীজ
মেয়ে : আচ্ছা যাবো ।
ছেলে : আমাদের সেই পুরানো দেখা করার
জায়গাটাতে ।

মেয়ে : ঠিক আছে ।

মেয়েটা ঠিক সময়ে পৌছে। গেল
দেখল ছেলেটা একটা কেক
নিয়ে আর একটা মোমবাতি
জালিয়ে
চাঁদের আলোয় বসে আছে ।
মেয়েটা এসে ছেলেটার পাশে
বসলো ।
মেয়ে : আমার জন্মদিন তুমি এখনও মনে রেখেছো
আর তুমি আমাকে এখনো ভালোবাসো !
ছেলে : মরার আগে পর্যন্ত ভালো বাসবো । কারণ
ভুলে যাওয়ার জন্যে তো আমি তোমায় ভালোবাসিনি
মেয়েটা এই কথাটা শুনার পরে হু হু করে কেঁদে উঠলো ছেলেটার হাতটা ধরলো ।

ছেলে : এই নাও কেকটা কাটো
মেয়েটা ছুরিটা তুলে কেকটা কাটলো ।
এক টুকরো ছেলেটাকে খাইয়ে দিল
আর এক টুকরো ছেলেটা
মেয়েটাকে খাইয়ে দিল ।
ছেলে : চোখে অস্রু আর কান্না কান্না কন্ঠে বললো
দেখো তুমি না অনেক সুখি থাকবে !
তোমার বর তোমাকে অনেক সুখে রাখবে!
মেয়ে : তোমার কি মনে হয় তোমাকে ছাড়া আমি সুখে থাকতে পারবে  ।
কিছুক্ষন চুপ থাকার পরে!

ছেলে : তুমি আমায় ভুলে যেও প্লিজ ।

মেয়ে : এটা হতে পারে না আচ্ছা আমরা কি এখনি পালিয়ে বিয়ে
করতে পারিনা ।

ছেলে : না , তাতে শুধু হয়তো আমরা সুখে থাকবো
কিন্তু তোমার আর আমার বাবা মা কিন্তু
খুব কষ্ট পাবে ।
ছেলে: আর তোমার বাবা
তোমার উপরে অনেক ভরসা করে বলেছে
পাত্র পক্ষকে যে তার মেয়ে তার কথার উপরে
কথা বলবে না । আর এটাই তোমার বাবার বিশ্বাস
তোমার উপরে । আর সে বিশ্বাস তুমি কি করে
ভাঙবে ।
মেয়ে :কেঁদে কেঁদে বললো
কেনো বাবা মা গুলো এমন হয় । তাদের কি
একটি বারও মনে হয়না তাদের সন্তানদের ও
একটি স্বাধীনতা আছে ।

ছেলে : বাবা মা আমাদের জন্ম দিয়েছে কত কষ্টের পরেও করে আপনাদের  লালন পালন করেছে । আজ আমাদের এত বড়ো করেছে তাই
তাদের ভরসাটা আমাদের উপরে একটু বেশীই!!

মেয়ে : I Love you .
ছেলে : I Love you too.
ছেলেটি মেয়েটির কপালে শেষ চুমু দিয়ে মেয়েটি কাঁদতে কাঁদতে বাড়ি
ফিরে গেল।

ছেলেটি ওখানেই বসে রইল ।
......
....
পরের দিন সকালে দেখা গেল মেয়েটা তার ঘরে
বিষ খেয়ে  আত্মহত্যা করেছে ।
আর ওদিকে ছেলেটা ওখানে ছুরি দিয়ে হাতের শিরা কেটে আত্মহত্যা করেছে ।

ভালোবাসা সত্যিই অবুঝ.....

আর সেই অবুঝ ভালোবাসা ঠিকই একদিন প্রকাশ
পায় কিন্তু তখন । সন্তানকে নিয়ে গর্ব করা
বাবা মায়ের কিছুই করার থাকে না ।

প্রিয় বাবা মা তোমাদের উপরে রাগ নয় ।
নয় কোনো অভিযোগ
বরং তোমাদের উপরে রইল অজস্র সন্মান
আর ভালোবাসা ।

----কেমন লাগলো গল্পটা জানাবেন কিন্ত।---

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

অফিস ॥ ৯২ আরামবাগ, ক্লাব মার্কেট, মতিঝিল। ই-মেইল ॥ banglaonlinetv24@gmail.com
প্রকাশক মোঃ রাসেল জাতীয় মানবাধিকার ইউনিটি রেজিঃ নং: ঢ_০৮৮৩৭
অনলাইন নিতীমালা মেনে আবেদন কৃত সম্পাদক॥ রাজু আহমেদ অনুমোদিত নাম্বার ০৫/৯৩১৭০২৬৫